ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ ফিচার রিভিউ – এ্যালিগ্যান্সি অফ স্পোর্ট হেরিটেজ

This page was last updated on 14-Jul-2021 02:51pm , By Ashik Mahmud Bangla

ইয়ামাহা মোটরসাইকেল অতি-সম্প্রতি ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ নতুন মোটরসাইকেলটি বাজারে ছেড়েছে। এই ব্র্যান্ডনিউ এক্সএসআর মডেলটি এই আগস্ট ২০১৯ এ থাইল্যান্ডের বাজারে আত্মপ্রকাশ করেছে। সর্বকনিষ্ঠ এই এক্সএসআর বাইকটির ফিচার ও প্রফাইল নিয়ে আমাদের আজকের আয়োজন, ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ ফিচার রিভিউ – এ্যালিগ্যান্সি অফ স্পোর্ট হেরিটেজ।

ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ ফিচার রিভিউ

এ্যালিগেন্সি অফ স্পোর্ট হেরিটেজ - ইয়ামাহা এক্সএসআর সিরিজ

ইয়ামাহা এক্সএসআর সিরিজটি একটি ডেডিকেটেড সিরিজ, যা ইয়ামাহা স্পোর্ট হেরিটেজ ব্যাজে ট্যাগ করা। এক্সএসআর সিরিজটি মুলত: রেট্রো-নিও ক্যাটাগরি মোটরসাইকেলেরই প্রতিনিধিত্ব করে। আর তাই, এই এক্সআরএস সিরিজটি একটি স্ট্রিট স্ক্র্যাম্বলার সিরিজ যা মেক্যানিক্যালি এ্যাডভান্সড প্রফাইলে তৈরী।

এক্সএসআর সিরিজটির ডিজাইন ও স্টাইলিং মুলত: পুরোনো দিনের মোটরসাইকেল ডিজাইনেরই আধুনিক ধারাবাহিকতা। তবে ডিজাইনে আদি ঐতিহ্য অনুসৃত হলেও এর পেশাকের নিচেই রয়েছে আধুনিক মেশিনারিজের সমাহার। আর সেকারনেই এটি শুধু আধুনিক মোটরসাইকেলই নয় বরং তা পুরোনো দিনের স্মৃতিগুলো বহন করে। আর এটাই হলো ইয়ামাহা স্পোর্ট হেরিটেজ ব্যাজটির থিম।

ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ ফিচার রিভিউ

তো ইয়ামাহা এক্সএসআর সিরিজটি প্রথম ২০১৫ সালে তাদের ৬০ বছরের রেসিং হেরিটেজ উৎসবে আত্মপ্রকাশ করে। আর ২০১৬ সালেই এই সিরিজের এক্সএসআর৯০০এক্সএসআর৭০০ বাইকদুটি বাজারে চলে আসে। এক্সএসআর সিরিজটি মুলত: পূর্বের এক্সএস-সিরিজটির স্থান আধুনিক ও নতুন টেকনলোজির নতুন মোটরসাইকেলের মাধ্যমে পূরন করে নেয়। আর এভাবেই ইয়ামাহাতে রেট্রো-নিও স্টাইলিং চলে আসে।

ইয়ামাহা তাদের জায়ান্ট স্পোর্ট-মেশিনগুলির এন্ট্রি-লেভেল ক্লোন বের করার ধারাবাহিকতায় এবারে নিয়ে এলো সর্বকনিষ্ঠ এক্সএসআর। আর বেশখানিকটা গুজব ও সমালোচনা সাপেক্ষে এক্সএসআর১৫৫ এই আগষ্ট ২০১৯ থাইলান্ডের বাজারে চলে আসে। নতুন এই মডেলটি বলা যায় অনেকটাই এক্সএসআর৯০০ ও এক্সএসআর৭০০ বাইকদুটির ছায়া। তবে এতে নতুন থাই-এমটি১৫ এর প্রায় সব আধুনিক প্রযুক্তিরই সমন্বয় ঘটানো হয়েছে। আর সবমিলিয়ে এটিও ইয়ামাহার স্পোর্ট-হেরিটেজ তথা রেট্রো-নিও ব্যাজভুক্ত।

ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ – রেট্রো-নিও লুক ও স্টাইলিং

ইয়ামাহার নতুন এক্সএসআর১৫৫ মোটরসাইকেলটি অনেকটাই এক্সএসআর৯০০ ও এক্সএসআর৭০০ বাইকদুটির ছায়া অনুসরন করে তৈরী। আর এক্সএসআর-সিরিজ যেমনটি সমসাময়িক এমটি-সিরিজের টেকনলেজি সমন্বয় করে, তেমনি এতেও রয়েছে এমটি১৫ এর সকল টেকনিক্যাল ফিচার। আর এভাবেই এই ছোট্ট স্ট্রিট-স্ক্র্যাম্বলারটির ডিজাইন সমন্বয় করা।

এক্সএসআর১৫৫ খুব সাধারন ও বাহুল্যবর্জিত একটি নেকেড ডিজাইন ধারন করে যা মুলত: স্ক্র্যাম্বলার বাইকের মুলকথা। আর এই রেট্রো-নিও টি ওল্ড-স্কুল ইন্সপায়ার্ড ইরগনোমিক্সের সাথে মডার্ণ টাচের সমন্বয়ে তৈরী। তাই এর হেডল্যাম্প, টেইলল্যাম্প, ওডোমিটার সবই মূলত: মডার্ণ গ্যাজেট। এসবে ডিআরএল, এলইডি, ও পুরো ডিজিটাল ডিভাইসের সমন্বয় ঘটানো হয়েছে। আর অবধারিতভাবেই সব গ্যাজেটই বাহুল্য বর্জন করে পুরাতন ধাঁচের গোলাকৃতি হাউজিংয়ে বসানো হয়েছে।

ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ ফিচার রিভিউ

এর ডেল্টাবক্স ফ্রেমটি পুরোপুরি নেকেড আর বাড়তি কোন প্যানেলই রাখা হয়নি। আর এর টেইলটিও একদম নেকেড। তবে তাতে ছোট্ট টেইলল্যাম্প ও রেজিষ্ট্রেশন হ্যাঙ্গার রয়েছে। এর সামনের চাকায় রয়েছে একটি লো-প্রোফাইল মাড-গার্ড। তবে এর একজষ্ট-মাফলারটি বেশ মোটা আর ইঞ্জিনের নিচে ছোট্ট একটি প্লাস্টিক বোউল রয়েছে।

বাইকটির ফুয়েল-ট্যাঙ্ক অনেকটাই ওল্ড-স্কুল টিয়ারড্রপ শেপের। আর তার সামনের দিকে ইগনিশন পিটটি বসানো। এর পাতলা সিঙ্গেল-পিস সিটটিও আপনাকে পুরোনো দিনের কথা মনে করিয়ে দেবে। সেইসাথে এর পাইপ হ্যান্ডেলবার ও অন্যান্য কন্ট্রোল-লিভারও আরামদায়ক আপরাইট-মোডে বসানো। তাতে রাইডিং পুরোপুরি উপভোগ করা যাবে। আর এভাবেই এক্সএসআর১৫৫ তে রেট্রো ও নিও প্রফাইলের সমন্বয় ঘটানো হয়েছে।

ডেল্টাবক্স ফ্রেম, মডার্ন হুইল, ব্রেক ও সাসপেনশন সিষ্টেম

নতুন ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ বাইকটিতে ডেল্টাবক্স এলুমিনিয়াম ফ্রেম দেয়া হয়েছে। এটা মুলত: এমটি১৫ ও আর১৫ এর মতো একই ফ্রেম। তবে এর ডাইমেনশনে কিছু ভিন্নতা রয়েছে। আর এক্সএসআর১৫৫ এও এলুমিনিয়াম সুইং-আর্ম রয়েছে।

তবে এই বাইকটির সাব-ফ্রেম একদমই আলাদা। এটা এর রেট্রো প্রফাইলের সাথে মিলিয়ে খোলাই রাখা হয়েছে। আর সবমিলিয়ে বাইকটিতে কিছুটা হাই গ্রাউন্ড-ক্লিয়ারেন্স, লোয়ার স্যাডল-হাইট, আর ১৩৪কেজির ওজনের সমন্বয় ঘটানো হয়েছে।

তবে বাইকটির হুইল, ব্রেক, আর সাসপেনশন মুলত: থাই-এমটি১৫ হতেই সমন্বয় করা। এর হুইলগুলো স্ট্রিট-হুইল। এতে জোড়াকৃত ১০-স্পোক এ্যালয়-রিম আর চওড়া টিউবলেস টায়ার রয়েছে। তবে এর টায়ারগুলো মুলত: ডুয়্যাল-স্পোর্টস টায়ার।

বাইকটির ব্রেকিং সিষ্টেম পুরোটাই এমটি১৫ এর মতো। এর দুটো চাকাতেই রয়েছে হাইড্রলিক ডিস্ক-ব্রেক। তবে এখন পর্যন্ত তাতে থাই এমটি১৫ ও আর১৫ এর মতোই এবিএস ফিচার দেয়া হয়নি।

আর সাসপেনশন সিস্টেমের ক্ষেত্রে বাইকটিতে সামনে রয়েছে ইউএসডি টেলিস্কোপিক-ফর্ক। আর পেছনে রয়েছে লিঙ্কড মনো সাসপেনশন। তবে এক্সএসআর১৫৫ এর আলাদা কালার-শেডভেদে এর সামনের সাসপেনশনের ব্যারেলগুলোর রঙও আলাদা। তো এভাবেই নতুন এক্সএসআর১৫৫ বাইকটি হুইল, ব্রেক, আর সাসপেনশনের দিক দিয়ে পুরোপুরি এক মডার্ন প্যাকেজ।

ইঞ্জিন ফিচার ও ক্যারেক্টারিস্টিক্স

ইয়ামাহার নতুন এই ছোট্ট রেট্রো-নিও টিও বড় মডেলগুলোর মতোই মেকানিক্যাল ও টেকনিক্যাল ট্রেন্ড ফলো করেছে। আর এক্সএসআর সিরিজিটি যেভাবে এমটি সিরিজের সাথে টেকনলজি সমন্বয় করে তেমনি এটিও এমটি১৫ এর ইঞ্জিনটিই সমন্বয় করে নিয়েছে।

যাহোক এটি সেই একই ৬-স্পিডের ১৫৫সিসির সিঙ্গেল-সিলিন্ডার, ফোর-স্ট্রোক, ওয়াটার-কুল্ড ইঞ্জিন যা এমটি১৫ ও আর১৫-ভি৩ তে ব্যবহৃত হয়েছে। আর এতেও রয়েছে একই এসওএইচসি ৪-ভালভ, ভিভিএ ও অ্যাসিস্ট স্লিপার-ক্লাচ ফিচার

ফুয়েল-ইন্জেকটেড এই ইঞ্জিনটিতে সকল টেকনিক্যাল ফিচার আর ক্যারেক্টারিস্টিক্স ও একই। তবে ইয়ামাহা থাইল্যান্ড, তাদের ওয়েবসাইটে অফিশিয়ালি এর পাওয়ার ও টর্ক ফিগার প্রকাশ করেনি। তবে স্ট্রিট-কমিউটার মোটরসাইকেল হিসেবে এর ইঞ্জিন ট্যুইকিং ও পারফর্মেন্স ফিগার কিছুটা ভিন্ন হবারই কথা। আর এটা মুলত: এই বাইকটির ক্যাটগরি, টাইপ, আর চালনার ক্ষেত্র সাপেক্ষে।

তবে যাই হোকনা কেন, এই ইঞ্জিনটি মোটামুটি সর্বোচ্চ ১৪.২কিলোওয়াট পাওয়ার আর ১৪.৭এনএম টর্ক ডেলিভারি দিতে পারে। আর ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ এর ফাইনাল-ড্রাইভ-রেশিও কিছুটা ভিন্নভাবে টিউন করা হলেও এর পারফর্মেন্স ফিগার অনেকটাই এর কাছাকাছি থাকবে। এটাই মুলকথা।

ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ ফিচার রিভিউ

Yamaha XSR155 – Specification & Dimensions

SpecificationYamaha XSR155
EngineSingle Cylinder, Four Stroke, Water Cooled, SOHC 4-Valve, VVA Engine
Displacement155cc
Bore x Stroke58.0mm x 58.7mm
Compression Ratio11.6:1
Valve SystemFour-Valve, SOHC with VVA
Maximum Power
Maximum Torque
Fuel SupplyFuel Injection
IgnitionTCI (Transistor Controlled Ignition)
Clutch TypeWet Type Multi-Plate Clutch; Assist & Slipper Clutch
Starting MethodElectric Start
Air Filter TypePaper Air Filter
Transmission6 Speed, Pattern 1-N-2-3-4-5-6
Dimension
Frame TypeDelta Box Frame
Dimension (LxWxH)2,000mm x 805mm x 1,080mm
Wheel Base1,330mm
Ground Clearance170mm
Saddle Height810mm
Kerb Weight134 Kg
Fuel Capacity:10 Liters
Engine Oil Capacity0.85 Liter (0.95 Liters when Oil Filter Changed)
Wheel, Brake & Suspension
The suspension (Front/Rear)USD Telescopic Fork Linked Mono Shock Absorber
Brake system (Front/Rear)Front: 282mm Hydraulic Disk Rear: 220mm Hydraulic Disk
Tire size (Front / Rear)Front: 110/70-17 M/C 54S Rear: 140/70-17 M/C 66S Both Tubeless

Battery12V, 3.0 MF ETZ4V
HeadlampAll-LED (Taillamp: LED)
SpeedometerFully Digital with Old School Round Pit

*All the specifications are subject to change upon company rules, policy, offer & promotion. BikeBD is not liable for the changes.

ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ ফিচার রিভিউ

তো বন্ধুরা মোটামুটি এই ছিলো নতুন এক্সএসআর১৫৫ বাইকটির সার্বিক ফিচার। আশাকরি বাইকটির প্রফাইল আমরা আমাদের ইয়ামাহা এক্সএসআর১৫৫ ফিচার রিভিউয়ে ভালোভাবে তুলে ধরতে পেরেছি। তবে সবমিলিয়ে আনন্দের বিষয় এই যে, আমরাও এন্ট্রি-লেভেল এক্সএসআর১৫৫ এর মাধ্যমে ইয়ামাহার স্পোর্ট-হেরিটেজের স্বাদ পেতে যাচ্ছি। চিয়ার্স!

Best Bikes

Honda CB Hornet 160R

Honda CB Hornet 160R

Price: 169800.00

Honda CB Hornet 160R ABS

Honda CB Hornet 160R ABS

Price: 255000.00

Honda CB Hornet 160R CBS

Honda CB Hornet 160R CBS

Price: 212000.00

View all Best Bikes

Latest Bikes

CFMoto 300SS

CFMoto 300SS

Price: 510000.00

Honda Shine 100

Honda Shine 100

Price: 107000.00

QJ SRK 250 RR

QJ SRK 250 RR

Price: 0.00

View all Sports Bikes

Upcoming Bikes

CFMoto 300SS

CFMoto 300SS

Price: 510000.00

Qj motor srk 250

Qj motor srk 250

Price: 0.00

GPX Demon GR200R

GPX Demon GR200R

Price: 0.00

View all Upcoming Bikes