Yamaha YZF R15 V3 ইউজার রিভিউ – বেলাল সরদার । বাইকবিডি

আসসালামু আলাইকুম ওয়া রহমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাতুহু, আমি বেলাল সরদার। আজ আমি আপনাদের সাথে আলোচনা করবো আমার Yamaha YZF R15 V3 বাইকটি ব্যবহারের অভিজ্ঞতা নিয়ে ৷ শুরু টা করেছিলাম বাংলাদেশ দিয়ে (বাংলাদেশি বাইক), তারপর গিয়েছিলাম ইন্ডিয়াতে। কিন্তু শুরুতেই হোঁচট খেলাম। নাম টা না হয় নাই বললাম ৷ তারপর দীর্ঘ দিন ছিলাম চায়নাতে। অভিজ্ঞতা খারাপ ছিলো না। এখন আছি জাপানে, হা এখন আমি আপনাদের কে বলবো আমার স্বপ্নের রাজকন্যা কাহিনী৷ Yamaha R15 এর প্রেমে পরে ছিলাম সেই ভার্সন ১ থেকেই। তবে সাধারণ পরিবারে ছেলে হওয়াতে তখন আপন করে নিতে পারিনি ৷ আশায় রইলাম অপেক্ষা আর শেষ না। এর মধ্যে আবারও চলে আসলো…

Review Overview

User Rating: 4.8 ( 1 votes)

আসসালামু আলাইকুম ওয়া রহমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাতুহু, আমি বেলাল সরদার। আজ আমি আপনাদের সাথে আলোচনা করবো আমার Yamaha YZF R15 V3 বাইকটি ব্যবহারের অভিজ্ঞতা নিয়ে ৷ শুরু টা করেছিলাম বাংলাদেশ দিয়ে (বাংলাদেশি বাইক), তারপর গিয়েছিলাম ইন্ডিয়াতে। কিন্তু শুরুতেই হোঁচট খেলাম। নাম টা না হয় নাই বললাম ৷ তারপর দীর্ঘ দিন ছিলাম চায়নাতে। অভিজ্ঞতা খারাপ ছিলো না। এখন আছি জাপানে, হা এখন আমি আপনাদের কে বলবো আমার স্বপ্নের রাজকন্যা কাহিনী৷

yamaha yzf r15 v3 in bangladesh

Yamaha R15 এর প্রেমে পরে ছিলাম সেই ভার্সন ১ থেকেই। তবে সাধারণ পরিবারে ছেলে হওয়াতে তখন আপন করে নিতে পারিনি ৷ আশায় রইলাম অপেক্ষা আর শেষ না। এর মধ্যে আবারও চলে আসলো Yamaha R15 V2 দেখার পর প্রেমটা আরো বেশি হয়ে গেলো।

এক কথায় পাগলই হয়ে গেলাম, তবে নিজের করার মতো সামর্থ্য ছিলো না ৷ স্বপ্নটাকে বুকের মাঝে রেখে অনেক বাইকই ব্যবহার করেছি ৷ এখন নিজেই আয় করি আর বর্তমান বাজারে চলেও আসলো সেই স্বপ্নের রাজকন্যা Yamaha R15 v3 Racing Black Indonesia । তাই আর কোন দেরি না করে আল্লাহর রহমতেই অনেক সাধনা করে স্বপ্নটাকে নিজেই আপন করেই নিলাম।

yamaha r15 v3 user review

চলেন এখন কিছু সুবিধা ও অসুবিধার কথা বলবো

পারফরমেন্সঃ

এক কথায় যদি বলি তাহলে এই বাইকটা অসাধারণ। কারন বাইকটা যেমন শক্তিশালি তেমনি তার নজর কাড়া USD suspension, সাথে রয়েছে নজর কাড়া এলইডি হেড লাইট এবং VVA। নজর কাড়া বড় এলিডি মনিটর আমার কাছে দারুন লেগেছে। বাইকটির ইঞ্জিন থেকে ১৯.২ হর্স পাওয়া এবং ১৪.৭০ পর্যন্ত টর্ক উৎপাদন হয়ে থাকে ৷

তবে এই বাইক দিয়ে যদি আপনি সিটিতে চলাচল করতে চান তাহলে আপনাকে অনেক সমস্যার সম্মুখীন হতে হবে। তারপর রাস্তায় দীর্ঘ সময় জ্যাম থাকলে আপনার শরীরে ব্যাথা অনুভব করতে পারেন৷ এখানে কিন্তু শেষ না, যদি আপনার উচ্চতা কম হয়ে থাকে তাহলে আরও কিছু সমস্যার সম্মুখীন আপনাকে হতে হবে৷ তবে হাইওয়েতে এই বাইক টা এক কথায় রাস্তার রাজা৷

কন্ট্রোলিংঃ

পিছনের চাকাটার দিকে তাকালে মনটা ভরে যায়। Yamaha R15 v3 দিয়ে কর্নারিং খুব ভালো ভাবেই করা যায়। পিছনের চাকা টা দিয়েছে ১৪০/৭০-১৭, যা আমার কাছে খুব ভালো মনে হয়েছে। আর সামনে দেয়া আছে ১০০/৮০-১৭ যা নিরাপদ ব্রেকিং এর নিশ্চয়তা দেয়।

yamaha r15 v3 price in bangladesh bikebd

হেড লাইটঃ

Yamaha R15 v3 এর হেডলাইট দেখতে অনেক সুন্দর। তবে আলো খুবই কম। একটা প্রিমিয়াম বাইক হিসবে এর হেডলাইটের আলো অনেক ভালো হওয়ার প্রয়োজন ছিলো।

মিটার ডিসপ্লেঃ

Yamaha R15 v3 এর মিটার ডিসপ্লে এক কথায় অসাধারণ। সব কিছু আছে এই ডিসপ্লেতে, কিলোমিটার, ঘড়ি,মাইলেজ হিসাবের সংকেত ইত্যাদি। তবে ডিসপ্লে অন করা মাত্রই ওয়েলকাম লেখাটা আমার কাছে দারুন লেগেছে।

Yamaha R15 v3 Review – Most Powerful Bike In Bangladesh

সাসপেনশনঃ

বাইকটির সাসপেনশন দেখতে খুবই সুন্দর, সোনালি রং এর ৷ কিন্ত এতো সৌন্দর্য যে আমাদের দেশের জন্য না৷ এই সৌন্দর্য বহন করার মতো শহরে তেমন কনো রাস্তা নেই আমাদের দেশে। সব রাস্তার বেহাল অবস্থা, এর ফলে এর সামনের সাসপেনশন থেকে আমি খুব ভালো সাপোর্ট পাই নি।

ব্রেকিংঃ

আমার মনে হয় না যে ইয়ামাহা কখন ব্রেক নিয়ে কোন ত্রুটি রাখে ৷ Yamaha R15 v3 এর সামনে ডুয়েল পিস্টন ক্যালিপার সহ একটি বড় 282 মিমি ডিস্ক ব্রেক এবং পিছনে একক পিস্টন ক্যালিপারের সাথে 240 মিমি ডিস্ক ব্রেক দিয়েছে, যা এক কথায় অসাধারণ।

yamaha yzf r15 v3 price in bd

ক্লাচঃ

Yamaha R15 v3 তে ৬ স্পীড গিয়ার বক্স যুক্ত করা হয়েছে। স্মুথ ক্লাচ সিস্টেম পাওয়ার জন্য বাইকটিতে যুক্ত করা হয়েছে স্লিপার ক্লাচ। গিয়ার শিফটগুলি আন্তর্জাতিক প্যাটার্নের, যার অর্থ ১ ডাউন এবং ৫ আপ গিয়ার সিস্টেম দেয়া হয়েছে। বাইকটির গিয়ার শিফটিং বেশ ভালো স্মুথ।

ইঞ্জিনঃ

আমার মনে হয় বাংলাদেশে ইয়ামাহার যে বাইকগুলো আছে সেইগুলোর মধ্যে ওয়াইজেডএফ ইঞ্জিন সেরা। এটি আসলেই প্রিমিয়াম কোয়ালিটিতে তৈরি করা হয়েছে। Yamaha R15 v3 এর ইঞ্জিন একটি একক সিলিন্ডার, ১৫৫ সিসি, লিকুইড কুলড , ৪ স্ট্রোক, এসওএইচসি, ৪ ভেলব , ফুয়েল ইনজেকশন, 58 মিমি বোর এবং ব্লু-কোর ইঞ্জিন। ইঞ্জিনটি বেশ শক্তিশালী এবং অনেক স্মুথ।

সুইচ সিস্টেমঃ

Yamaha R15 v3 এর স্যুইচ গিয়ারগুলি প্রতিটি ইয়ামাহা বাইকের মতো এবং প্রিমিয়াম মানের। অন্যান্য সুইচ গিয়ারগুলির মতো পাস লাইট, হেডলাইট সুইচ এবং অন্যান্য সাধারণ সুইচগুলি রয়েছে Yamaha R15 v3 বাইকে। আমি আজ পর্যন্ত যে বাইকগুলো ব্যবহার করেছি তার মধ্যে এই বাইকটির সুইচ আমার কাছে সেরা।

মাইলেজঃ

বাইকটি থেকে আমি সিটির মধ্যে মাইলেজ পেয়েছি ৩৮-৪২ এবং হাইওয়ে তে মাইলেজ পেয়েছি ৪২+ যা খুবই ভালো মনে হয়েছে।

r15 v3 bike price in bd

Yamaha YZF R15 V3 – FAQ:

  • ইন্ডিয়ান Yamaha R15 v3 এবং ইন্দোনেশিয়ান Yamaha R15 v3 এর মধ্যে পার্থক্য কি?
    উত্তরঃ ব্রেকিং সিস্টেম, কালার সহ আরো বেশ কিছু পার্থক্য রয়েছে ইন্ডিয়ান এবং ইন্দোনেশিয়ান Yamaha R15 v3 এর মধ্যে।
  • ইন্ডিয়ান Yamaha R15 v3 এবং ইন্দোনেশিয়ান Yamaha R15 v3 মূল্য কি একই?
    উত্তরঃ ইন্ডিয়ান Yamaha R15 v3 এর মূল্য ইন্দোনেশিয়ান Yamaha R15 v3 এর চাইতে কিছুটা কম।
  • ইন্দোনেশিয়ান Yamaha R15 v3 মূল্য কত?
    উত্তরঃ ইন্দোনেশিয়ান Yamaha R15 v3 এর মূল্য ৫,২৫,০০০ টাকা।

পরিশেষে বলতে চাই আমি ইন্দোনেশিয়ান Yamaha YZF R15 v3 বাইকটি নিয়ে খুব সন্তুষ্ট। আমি একটা বাইক থেকে যা যা চাই সব কিছু আমি এই বাইকটি থেকে পাচ্ছি।

 

লিখেছেন – বেলাল সরদার

 

আপনিও আমাদেরকে আপনার বাইকের মালিকানা রিভিউ পাঠাতে পারেন। আমাদের ব্লগের মাধ্যেম আপনার বাইকের সাথে আপনার অভিজ্ঞতা সকলের সাথে শেয়ার করুন! আপনি বাংলা বা ইংরেজি, যেকোন ভাষাতেই আপনার বাইকের মালিকানা রিভিউ লিখতে পারবেন। মালিকানা রিভিউ কিভাবে লিখবেন তা জানার জন্য এখানে ক্লিক করুন এবং তারপরে আপনার বাইকের মালিকানা রিভিউ পাঠিয়ে দিন [email protected] – এই ইমেইল এড্রেসে।

About Arif Raihan opu

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*