সেরা ৫টি ১২৫সিসি মোটরসাইকেল – ওয়াসিফ আনোয়ার

বাংলাদেশের মোটরসাইকেল মার্কেটে ১২৫সিসি সেগমেন্ট অনেক বড় একটি জায়গা দখল করে আছে। আমি বিশেষ ভাবে এই সেগমেন্ট কে অনেক পছন্দ করে থাকি। এর কারণ হচ্ছে এতে আপনি ১১০সিসি এর কম্ফোর্ট পাবেন আবার সেই সাথে ১৫০সিসি বাইকের সাথে টক্কর দেয়ার মত পাওয়ার পাবেন। আজ আমরা আপনাদের জন্য নিয়ে এসেছি বাংলাদেশে পাওয়া যায় এমন ৫টি ১২৫সিসি মোটরসাইকেল

top 5 125cc commuting motorcycles in bangladesh ৫টি ১২৫সিসি মোটরসাইকেল

সেরা ৫টি ১২৫সিসি মোটরসাইকেল

  • Honda Shine SP – ১,২৬,৯০০/- টাকা

Shine SP বাংলাদেশের অন্যতম জনপ্রিয় এবং নির্ভরযোগ্য একটি মোটরসাইকেল। বর্তমানে যেই মডেলটি বাংলাদেশে পাওয়া যাচ্ছে সেটি ১২৫সিসি ইঞ্জিন বিশিষ্ট। যা থেকে 10.2 BHP @ 10.2 NM of Torque শক্তি উৎপন্ন হয়ে থাকে। এই বাইকের সামনে ও রেয়ারে দেয়া হয়েছে ৮০ সেকশন টায়ার এবং সামনের দিকে দেয়া হয়েছে ডিস্ক ব্রেক।

Honda-Shine-SP price in bd

এছাড়া এর সাথে রয়েছে এয়ার স্কুপ যা ফুয়েল ট্যাঙ্কের পাশে দেয়া হয়েছে, আরও আছে ডিজিটাল এনালগ স্পিডোমিটার, সিল চেইন, প্রশস্ত সিট এবং ৫ স্টেপ এডজাস্টেবল রেয়ার সাসপেনশন। হোন্ডা দাবী করেছে যে তাদের HET প্রযুক্তির কারণে বাইকটির মাইলেজ অনেক বেড়ে যাবে।

Hero-Ignitor test ride

  • Hero Ignitor – ১,২০,৯০০/- টাকা

হিরো ইগনাইটর বাইকটির সামনের দিকে স্ট্যান্ডার্ড ডিস্ক ব্রেক দেয়া হয়েছে এবং নতুন ভার্সনে যুক্ত করা হয়েছে Integrated Braking System (IBS) । এই বাইকটি ভারত থেকে আসা ১২৫সিসি সেগমেন্টের অন্যতম বাইক, যাতে দেয়া হয়েছে ৯০ সেকশন টায়ার। আমরা বাংলাদেশীরা একটু প্রশস্ত টায়ার পছন্দ করে থাকি এবং হিরো আমাদের সেই দিকটা খেয়াল রেখেছে বলে আমরা তাদের ধন্যবাদ জানাচ্ছি।

Hero Ignitor 125 Review By Team BikeBD

এই বাইকটি রাইড করা অনেক আনন্দদায়ক, কারণ বাইকটি ঢাকা শহরের ভেতর রাইড করার সময় আপনি ৫২ – ৫৫ কিলোমিটার প্রতি লিটার মাইলেজ পাবেন। আমরা বাইকটি টেস্ট রাইড করার সময় এই মাইলেজ পেয়েছি। এডজাস্টেবল রেয়ার সাসপেনশন এবং আরামদায়ক সিটের কারণে বাইকটি বাংলাদেশের খারাপ রাস্তায়ও ভাল পারফর্ম করতে সক্ষম। বাইকটির ইঞ্জিন অনেক পাওয়ারফুলও বলা যায়, যা থেকে 11.1 BHP & 11 NM of Torque উৎপন্ন হয়ে থাকে।

Bajaj-Discover-125 disc version

  • Bajaj Discover 125 – ১,৩৩,৫০০/- টাকা

এই বাইকটি অতীতেও যেমন ছিল ঠিক তেমন ডিজাইন রাখা হয়েছে, তবে নতুন স্পিডোমিটার ও ইঞ্জিন উন্নত করা হয়েছে। ইঞ্জিনটি বাজাজের DTS-i প্রযুক্তি সমৃদ্ধ, যা থেকে 10.9 BHP & 10.8 NM of Torque শক্তি উৎপন্ন হয়ে থাকে।

কয়েক বছর ধরেই ১২৫সিসি সেগমেন্টে বাজাজ ডিস্কভার ১২৫সিসি বাইকটি বিক্রয়ের দিক থেকে শীর্ষে অবস্থান করছে। এর কারণ পুরো বাংলাদেশ জুড়ে বাজাজের ৪০০ এর বেশি সার্ভিস পয়েন্ট রয়েছে এবং এর পার্টস দামও এই সেগমেন্টে অন্যান্য বাইকের চেয়ে কম।

Haojue-KA135 engine

  • Haojue KA135 – ১,২২,০০০/- টাকা

হাওজুর বাইক গুলোর মধ্যে কিছু একটা বিশেষত্ব রয়েছে সেটা DR160, TR150 অথাব KA135 হোক না কেন। এই বাইকটিতে দেয়া হয়েছে ১৩৫সিসি কার্বুরেটর ইঞ্জিন, যা থেকে 10.7 BHP & 11.3 NM of Torque উৎপন্ন হয়ে থাকে।

Haojue KA135 Review By Team BikeBD

এই বাইকটির ফিচার্স এর মধ্যে রয়েছে ডিজিটাল স্পিডোমিটার, সিঙ্গেল পিস্টন ডিস্ক ব্রেক, আরামদায়ক এডজাস্টেবল রেয়ার সাসপেনশন। আমরা যখন এই বাইকটি টেস্ট রাইড করেছি তখন এই বাইকটির মাইলেজ পেয়েছি ৪২ – ৪৫ কিলোমিটার প্রতি লিটার। অপর দিকে কালার অপশন দিকে থেকে এই সেগমেন্টে এই বাইকটী এগিয়ে আছে কারণ এর ইউনিক কালার অপশন রয়েছে।

Yamaha-Saluto 125 color

  • Yamaha Saluto – ১,২৪,০০০/- টাকা

ইয়ামাহা এর একমাত্র কমিউটার মোটরসাইকেল হচ্ছে ইয়ামাহা স্যালুটো। এই বাইকটিতে দেয়া হয়েছে পরিপূর্ন রূপে সাসপেনশন যা একটি আরামদায়ক রাইডের অনুভূতি প্রদান করে।

স্যালুটোর রয়েছে এনালগ স্পিডোমিটার এবং আমাদের টেস্ট রাইডের সময় আমরা ঢাকার ভেতর মাইলেজ পেয়েছি ৫২ কিলোমিটার প্রতি লিটার। এছাড়া বাইকটির সিট বেশ প্রশস্ত এবং এতে দুজন খুব অনায়াসেই আরামদায়ক ভাবে বসতে পারে।

Yamaha Saluto 125 Mega Review

এই মাহামারীতে বাইক সবার কাছেই বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে । সবাই সাধ্যের ভেতর একটি কমিউটার মোটরসাইকেল খুজে থাকেন, তবে যাদের বাজেট ১ লাখ ২৫ হাজার টাকার মধ্যে তারা উপরের যেকোন একটি বাইক ক্রয় করতে পারেন। যা আপনাদের ১৫০সিসি সেগমেন্টের বাইকের অনুভূতি প্রদান করতে সক্ষম, আবার সেই সাথে ১০০ বা ১১০ সিসি সেগমেন্টে আরামদায় রাইডের নিশ্চয়তাও প্রদান করবে।

We will be happy to hear your thoughts

Leave a reply

BikeBD
Logo